মঙ্গলবার ৩০শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

ভূঞাপুরে গুজব সৃষ্টি করে লবণের কৃত্রিম সংকটের চেষ্টা

  |   মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯

ভূঞাপুরে গুজব সৃষ্টি করে লবণের কৃত্রিম সংকটের চেষ্টা

আব্দুল লতিফ তালুকদার, ভূঞাপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি: টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে সকাল থেকেই শুরু হয়েছে লবণ কেনার প্রতিযোগিতা। ক্রেতারা দাম বাড়ার গুজবে কেউ দুই কেজি কেউবা পাঁচ থেকে দশ কেজি পর্যন্ত লবণ কিনে নিয়ে বাড়ি যাচ্ছে। লবণ কেনাকে কেন্দ্র করে ভূঞাপুরের বিভিন্ন বাজারের দোকানগুলোতে ছিল উপছে পড়া ভীড়।

সরেজমিনে গিয়ে বেশ কিছু ক্রেতার সাথে কথা বলে জানা যায়, আমরা শুনেছি দেশে লবণের সংকট হবে তাই ঝুঁকি না নিয়ে সারাবছরের জন্য লবণ কিনে রাখছি। এ দিকে টাঙ্গাইলের পুরো জেলাজুড়ে চলছে লবণ সংকটের গুজব।

মঙ্গলবার (১৯ নভেম্বর) সকাল থেকে হঠাৎ লবণের দাম বাড়বে বলে এরকম গুজব ছড়িয়ে পড়ে ভূঞাপুরের বিভিন্ন বাজারগুলোতে। এ খবর শুনে বিভিন্ন গ্রাম থেকে লোকজন এসে ভীড় জমায় লবণের দোকানগুলোতে। এই সুযোগে পেঁয়াজের মতো দাম বাড়িয়ে ক্রেতাদের নিকট থেকে বেশি লাভের চেষ্টা করে দোকানিরা। এতে করে প্রতি পঁচিশ কেজি লবণের বস্তায় ১’শ থেকে ১’শ ৫০ টাকা দাম বাড়িয়ে দিয়েছে ব্যবসায়ীরা।

webnewsdesign.com

গোবিন্দাসী বাজারের মসলা ও লবণ ব্যবসায়ী মো. আব্দুল হালিম মন্ডল বলেন, সকাল থেকেই আমার দোকানে লবণ কেনার জন্য ক্রেতারা ভীড় জমাচ্ছে। বিগত কয়েক মাসেও আমি এতো লবণ বিক্রি করতে পারিনি যা একদিনে বিক্রি করে পেরেছি। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমি লবণ আগের দামেই বিক্রি করছি এবং বেশি দামের বিষয়টি সম্পূর্ণ গুজব। এ দিকে ব্যবসায়ী মো. ফরিদ বলেন, গত কয়েকদিন ধরে সারাদেশে শ্রমিক ধর্মঘটের কারণে গাড়ী পাওয়া যাচ্ছে না তাই মানুষ মনে করছে লবণের সংকট পড়েছে। তবে গাড়ী সংকটের কারণে লবণের দাম কিছুটা বেড়েছে।

উপজেলার বেতুয়া গ্রামের লবণ কিনতে আসা মোছা: আনোয়ারা বেগম বলেন, আগে যে মোটা লবণ ১ কেজি ২০ টাকা দিয়ে কিনতাম, সেই মোটা লবণ আজকে ৩০ টাকা দিয়ে কিনলাম।

ভূঞাপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোছা: নাসরীন পারভীন বলেন, লবণ সংকেটর বিষয়টি সম্পূর্ণ একটি গুজব। আমরা উপজেলা প্রশাসন থেকে গুজবে কান না দেয়ার জন্য মাইকিং করেছি। কোন ব্যবসায়ী লবণ সিন্ডিকেটের সাথে জড়িত থাকলে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আসলাম হোসাইন বলেন, লবণের বিষয়টি শোনার পর থেকে বাজার মনিটরিং করছি।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৫:১৬ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯

দৈনিক প্রথম দৃষ্টি |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০  
প্রকাশক
মাসুদ করিম সিদ্দিকী
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক
মিজানুর রহমান সিদ্দিকী রঞ্জু
সম্পাদক
এস কে দোয়েল
অফিস ব্যবস্থাপনা
নিসা আলী
সম্পাদকীয় কার্যালয়
৫/সি, আফতাবনগর মেইন রোড, রামপুরা, ঢাকা।
আঞ্চলিক প্রধান কার্যালয়
চৌরাস্তা বাজার, তেঁতুলিয়া, পঞ্চগড়
ফোন
+৮৮০১৭৫০-১৪০৯১৯ (সম্পাদক)
+৮৮০১৭১৮-৭৭২৭৪৯ (বার্তা-সম্পাদক)
Email
prothomdristy@gmail.com